নারীর সৌন্দর্য শাড়ি

নারীর সৌন্দর্য শাড়ি – মডেলঃ সুহা শারাফা

বাংলাদেশ টাইমসঃ  আবহমান বাংলার নারী সর্বদাই তার সৌন্দর্য খুঁজে পেয়েছে শাড়িতে। শাড়ির সৌন্দর্যের কাছে যেন হার মানে অন্যসব পোশাকই। আর এ জন্যই তো বাঙালি নারীদের কাছে শাড়ি খুব শখের একটি পোশাক। জীবনের আনন্দঘন মুহূর্তগুলো যেমন বিয়ে-জন্মদিন, বাসার পার্টি, অফিসের কাজে কিংবা অন্য যে কোনো উৎসবে শাড়িই হয়ে ওঠে বাঙালি নারীর প্রথম এবং একমাত্র পছন্দ। আর নিজের বিয়ের ক্ষেত্রেও শাড়ি আলাদা গুরুত্ব পায়। বেশির ভাগ নারীই চান, তার বিয়ের শাড়িটি হবে সুন্দর এবং দামি।

নারীর সৌন্দর্য শাড়ি – মডেলঃ সুহা শারাফা

যখন ছোট ছিলাম, তখন দেখা যেত ছোট ছোট বাচ্চা মেয়েরা খালি গায়ে লাল, সবুজ ডুরে শাড়ি পরে ছোটাছুটি করছে! কী যে সুন্দর লাগতো! কেউ কেউ ফ্রকও পরতো। কিশোরি মেয়েরা সালোয়ার-কামিজ-ওড়না। কলেজে উঠে প্রায় বেশিরভাগ মেয়েই শাড়ি ধরতো। হিন্দু মেয়েদের যেমন সিঁথিতে সিঁদুর দেখলে বোঝা যেতো বিবাহিতা, তেমনি বাঙালি মুসলমান মেয়েরা বিয়ের পর সবাই শাড়ি ছাড়া অন্য পোশাক পরতো না।

নারীর সৌন্দর্য শাড়ি – মডেলঃ সুহা শারাফা

যে কোনো শাড়িতে যে কোনো ডিজাইন বা নকশা স্থানীয়ভাবে বানানো সম্ভব। আমাদের দেশের শাড়ির মধ্যে বেনারসি, জর্জেট, জামদানি ও মসলিন রয়েছে। কেউ যদি এসব শাড়িতে নিজের ইচ্ছা অনুযায়ী নকশা করতে চান, তাহলে সেটিই তৈরি করে দিতে পারেন কারিগররা। ঢাকার মিরপুর ও মোহাম্মদপুরে রয়েছে অসংখ্য কারিগর, যারা নিয়মিত বিয়ে বা অন্যান্য অনুষ্ঠানের জন্য শাড়ি তৈরির অর্ডার নেন। পোশাকের অনেক আধুনিকায়ন হলেও বাঙালি নারীর শাশ্বত সৌন্দর্য ফুটে ওঠে শাড়িতেই। বাঙালি নারীর চিরন্তন সৌন্দর্য ফুটিয়ে তুলতে বারো হাত শাড়ির কোনো বিকল্প নেই। নারীদের ঐতিহ্যবাহী ও নিত্যনৈমিত্তিক পরিধেয় বস্ত্র শাড়ি। বাংলার এই শাড়ির ঐতিহ্য টিকিয়ে রাখার সম্পূর্ণ কৃতিত্ব বাঙালি রমণীদের। এই পোশাকটির সঙ্গে বাঙালিয়ানার টান রয়েছে।

হরেক রকমের বাহারি ডিজাইনের হালকা, আরামদায়ক এবং সব বয়সের জন্য মানানসই জর্জেট শাড়ি পরার মজাটাই আলাদা। এগুলো এখনকার আবহাওয়ার সঙ্গে মানিয়েও যায় বেশ। কড়া রোদেও যেমন গরম লাগে না তেমন আবার বৃষ্টির পানি লাগলেও শুকিয়ে যায় বেশ তাড়াতাড়ি। আর শীতের সময় জর্জেট শাড়িতে মেয়েদের আরও বেশি মানায়। জর্জেট, শিফন জর্জেটের শাড়িগুলোতে রয়েছে ঐতিহ্য আর বৈচিত্র্যের দারুণ মিশ্রণ। ফুলেল নকশা, কলকা, লতাপাতা, জ্যামিতিক নকশা, একরঙার সঙ্গে চিকন লেস এখন বেশি দেখা যাচ্ছে। কর্মক্ষেত্রে পরার জন্য পোলকা ডট, জ্যামিতিক নকশা, বিমূর্ত নকশা বেছে নিতে পারেন। আবার একরঙা জর্জেট শাড়িতে কাপড় লাগিয়ে বৈচিত্র্য আনতে পারেন। এতে আপনাকে ভালো মানানসই লাগবে। প্রিন্ট এবং একরঙা পাড়ের জর্জেট শাড়িগুলোই এখন সময়ের সঙ্গে মানানসই।

নারীর সৌন্দর্য শাড়ি – মডেলঃ সুহা শারাফা

মোটিফ আর বুননে অনেক বেশি বৈচিত্র্য রয়েছে সিল্ক, হাফসিল্ক শাড়িতে। সিল্কে রয়েছে নানা রকমের বাহারি বৈচিত্র্যের ছোঁয়া। কোটা সিল্ক, জুট সিল্ক, চন্দ্রমুখী সিল্ক, কাতান, কাশ্মিরী, পার্বতী সিল্ক, সিল্ক শিফন, কাশ্মীর সিল্ক, সুপরা সিল্ক, বলাকা সিল্ক- সবই সিল্ক। হ্যান্ডপেইন্ট, কাটওয়ার্ক, কাঁথাস্টিক, ব্লক, মিরর, কারচুপি, বাটিক, ভেজিটেবল ডাই সবই খুঁজে পাওয়া যায় এই সিল্ক শাড়িতে।

নারীর সৌন্দর্য শাড়ি

মডেল – সুহা শারাফা

বাংলাদেশ টাইমস / জে.এইচ.আর

Leave A Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.